১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১রবিবার

১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১রবিবার

নদীতীরে মুঘল যুগের গুপ্তধনের আশায় তাঁবু বানিয়ে খননকার্য চালাচ্ছে গ্রামবাসীরা

অদ্ভুত এক ঘটনার সূত্রপাত ঘটে যখন মধ্যপ্রদেশের রাজগড় জেলার বেশকিছু গ্রামবাসী শুকনো পার্বতী নদীর তীরে অস্থায়ী ঘাঁটি গেড়ে বসবাস শুরু করে। খোঁজ নিয়ে জানা যায় তারা মুঘল যুগের মুদ্রা, মনিমানিক্য- এর সন্ধান পেয়েছে। ভূপাল থেকে ১৪১ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত এই নদী তীরে তিনদিন ধরে অগণিত মানুষের ভীড় চোখে পড়ছে যারা এই মুদ্রা সংগ্রহের আশায় তাঁবু গেড়েছেন।

 

 

হিন্দুস্থান টাইমসের একটি প্রতিবেদন অনুযায়ী তিনদিন আগে কিছু সংখ্যক মানুষ শিবপুরা গ্রাম সংলগ্ন নদী তীরে কিছু মোঘল আমলের মুদ্রা খুঁজে পেয়েছেন। তৎক্ষণাৎ এমন গুজব রটে যায় যে পার্বতী নদীর তীরে গুপ্তধনের সন্ধান পাওয়া গেছে। এই গুজব ঝড়ের বেগে ছড়িয়ে পড়ে এই আশেপাশের জেলাগুলোতেও। গুপ্তধনের সন্ধানে গুনা, শিহর ইত্যাদি জেলা থেকেও বহুমানুষ রাতারাতি চলে আসে নদী তীরে। স্থানীয় এক আধিকারিক এমনটাই জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন
সমুদ্রের নীচে মিশরীয় সভ্যতার ধ্বংসাবশেষের মধ্যেই খুঁজে পাওয়া গেলো মূল্যবান সম্পদ

ভীড় এতটাই বেশি হয়ে যায় যে আইন- শৃঙ্খলা ভাঙার আশঙ্কায় অতিরিক্তি পুলিশ মোতায়েন করতে হয়। পুলিশ সুপার প্রদীপ শর্মা জানিয়েছেন তাঁরা যথাসম্ভব মানুষকে সাবধান করার চেষ্টা করছেন এবং গুজবে কান দিতে বারণ করছেন। এক গ্রামবাসী ১৮ বছর বয়সী রানু যাদব বলেন তাঁরা সবাই মিলে পুরো নদীর তীরে খননকাজ চালাচ্ছেন। লক্ষ্মীলাভের আশায় তাঁরা আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। আর এক গ্রামবাসী রামনরেশ সিং বলেন, “আমরা ২৪ ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি, আমাদের আশা মুদ্রাগুলো আমরা খুঁজে বার করবোই।” জেলা আধিকারিকরাও ঘটনার ওপর কড়া নজর রেখেছেন।

 

রাজগড় জেলা কালেক্টার নিরাজ কুমার সিং এর কাছে ঘটনার সূত্রপাত এবং কোন বিশ্বাসে এতো মানুষ গুপ্তধনের আশায় খোঁড়াখুঁড়ি চালাচ্ছে তা জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন প্রত্নতাত্ত্বিকদের পরামর্শ নিয়ে জানা গেছে এই মুদ্রাগুলো মুঘল জামানার। তবে স্থানীয় গহনা, গৃহরত্ন ব্যবসায়ীরা পরীক্ষা করে জানিয়েছেন মুদ্রাগুলো মূলত ব্রোঞ্জ এবং লোহার মিশ্রনে তৈরি যার বিশেষ কোনো মূল্য নেই।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

7,808FansLike
19FollowersFollow

Latest Articles

error: Content is protected !!